সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ১১:২৮ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
মিয়ানমারে সরকার গঠন করতে যাচ্ছে বিদ্রোহীরা প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ জানিয়েছে মোস্তাফিজ ও বাবুল মিয়ানমারের গ্যং স্টারের বাংলাদেশি সহযোগি হোয়াইক্যং এর দালালরা অধরায়! সাড়ে ৪ লাখের বেশি রোহিঙ্গা টেকনাফে প্রবেশের অপেক্ষায়! হ্নীলা উম্মে সালমা মহিলা মাদরাসায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত আরো ৬৪ জন পালিয়ে এলো মিয়ানমার বিজিপি মিয়ানমারের ৫৮ সীমান্তরক্ষী পালিয়ে বিজিবির কাছে আত্মসমর্পণ! জেলা ইসলামী আন্দোলনের সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল আজ হোয়াইক্যং লাতুরীখোলায় আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে জমি দখলের চেষ্টা ভোট বর্জন করে সরকারকে ‘লাল কার্ড’ দেখিয়েছে জনগণ চরমোনাই পীর
পুলিশের মামলায় নাম নেই স্পর্শিয়ার

পুলিশের মামলায় নাম নেই স্পর্শিয়ার

সম্প্রতি ওটিটি প্ল্যাটফর্মে মুক্তি পেয়েছে শাকিব খান, মাহিয়া মাহি ও অর্চিতা স্পর্শিয়া অভিনীত ‘নবাব এলএলবি’ ছবির অর্ধেক অংশ। এই ছবিরই একটি দৃশ্যকে ঘিরে সম্প্রতি শুরু হয়েছে তুমুল বিতর্ক। ওই দৃশ্যে দেখা যায়, ধর্ষণের শিকার এক নারী (স্পর্শিয়া) থানায় যান মামলা করতে। সেখানে পুলিশের এসআই (অভিনেতা শাহীন মৃধা) ওই নারীকে ধর্ষণ বিষয়ে খুবই আপত্তিকর কয়েকটি প্রশ্ন করেন।

এ ঘটনায় আপত্তি জানিয়েছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগের পরিদর্শক নাসিরুল আমিন বাদী হয়ে পর্নোগ্রাফি আইনে রমনা থানায় একটি মামলা করেছেন। সেই মামলায় ‘নবাব এলএলবি’র পরিচালক অনন্য মামুন, অভিনেতা শাহীন মৃধাসহ তিনজনকে আসামি করা হয়েছে।

শুধু তাই নয়, পরিচালক অনন্য মামুন ও অভিনেতা শাহীন মৃধাকে বৃহস্পতিবার রাতে গ্রেপ্তারও করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগ। শুক্রবার তাদেরকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। ওই মামলায় ‘নবাব এলএলবি’র অভিনেত্রী অর্চিতা স্পর্শিয়ার (যিনি ধর্ষিতা নারীর চরিত্রে অভিনয় করেছেন) নামও রয়েছে বলে গণমাধ্যমে প্রকাশ হয়েছে।

তবে মামলার এজাহারে স্পর্শিয়ার নাম নেই বলে ঢাকা টাইমসকে নিশ্চিত করেছেন ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগের উপ-কমিশনার শরিফুল ইসলাম। তিনি বলেন, মামলায় কোনো মেয়ের নাম নেই। মামলাটি বর্তমানে তদন্তাধীন আছে। আপাতত এর চেয়ে বেশি কিছু বলা যাচ্ছে না।’

মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, ‘ছবিতে ধর্ষণের বর্ণনা ও জিজ্ঞাসাবাদ অত্যন্ত আপত্তিকর ভাষায় তুলে ধরা হয়েছে। যা সুস্থ বিনোদনের পরিপন্থী। পরিবার-পরিজনসহ একত্রে বসে দেখা সম্ভব নয়। এই ভিডিও জনসাধারণের মধ্যে পুলিশ সম্পর্কে নেতিবাচক ধারণা তৈরি করবে। এটি বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীর জন্য অত্যন্ত মানহানিকর। ওই ভিডিওর মাধ্যমে বাংলাদেশ পুলিশকে জনসাধারণের সম্মুখে অত্যন্ত নেতিবাচকভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে।’

প্রসঙ্গত, ‘নবাব এলএলবি’ চলচ্চিত্রটির প্রধান দুটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন শাকিব খান এং মাহিয়া মাহি। একটি বিশেষ চরিত্রে আছেন অর্চিতা স্পর্শিয়া। আরও আছেন ছোট পর্দার সুপরিচিতি মুখ শহীদুজ্জামান সেলিম। ছবিতে পুলিশের এসআই চরিত্রে অভিনয় করেছেন শাহীন মৃধা।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Design By Rana